শিরোনাম
 সিদ্দিকুরকে চেন্নাই নেয়া হচ্ছে  ইতিহাস সংস্কৃতিকে তুলে ধরে উন্নত চলচ্চিত্র নির্মাণ করুন: প্রধানমন্ত্রী  সীতাকুণ্ডের ত্রিপুরা পাড়ার আরেক শিশুর মৃত্যু  সংবিধানিক অধিকারকে খাঁচায় বন্দি রেখেছে সরকার: রিজভী
প্রকাশ : ১৬ জুলাই ২০১৭, ১৯:২৮:২৩ | আপডেট : ১৬ জুলাই ২০১৭, ২১:২১:৫৭

‘মার্কেটে অনাকাঙ্ক্ষিত স্পর্শের শিকার ৫০% নারী’

সমকাল প্রতিবেদক
হাসপাতালে জরুরি গণসেবা নিতে গিয়ে সেবাপ্রদানকারীদের কাছ থেকে দুর্ব্যবহারের শিকার হন ৪২ দশমিক ৫ শতাংশ নারীকে। ৫০ শতাংশ নারীই মনে করেন, মার্কেট বা বাজারে তারা অনাকাঙ্ক্ষিত স্পর্শ বা এমন পরিস্থিতিতে আক্রান্ত হন। আন্তর্জাতিক বেসরকারি সংস্থা অ্যাকশন এইড বাংলাদেশ পরিচালিত 'গণপরিসরে নারীর প্রতি সহিংসতার প্রেক্ষিতে গণসেবা' শীর্ষক গবেষণায় এ তথ্য উঠে এসেছে।

রোববার ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে একশন এইড বাংলাদেশ আয়োজিত 'গণসেবা প্রচারাভিযান ২০১৭ : মানসম্মত গণসেবা' শীর্ষক মতবিনিময় সভায় এ প্রতিবেদন উপস্থাপন করা হয়।

চট্টগ্রাম, খুলনা, রাজশাহী ও নারায়নগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের পুলিশ প্রশাসন, সিটি করপোরেশন, পরিবহন কর্তৃপক্ষ, বাজার ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ এবং হাসপাতাল সেবা নিয়ে ৪০০ মানুষের উপর এ গবেষণাটি হয়। গবেষণায় বলা হয়, অর্থায়ন, নীতির বাস্তবায়ন, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতার অভাবে বাংলাদেশের স্বাস্থ্য, শিক্ষা ও যাতায়াতের মতো গুরুত্বপূর্ণ গণসেবাগুলো জনমুখী নয়।

২০১৬ সালের শেষ দিকে করা এ গবেষণায় দেখা গেছে, শতকরা ৩০ ভাগ নারী মনে করেন, পুলিশ স্টেশনে তারা উত্যক্ত হন, শতকরা ৩৫ ভাগ তারা শারীরিক নির্যাতনের শিকার হন। গবেষণায় দেখা যায়, বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানে নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধে তেমন ব্যবস্থা নেই। যথাযথভাবে তা আমলেও নেওয়া হয় না।

সভায় গবেষণার ফলাফল ও গণসেবা নিয়ে ধারণাপত্র উপস্থাপন করেন অ্যাকশনএইড বাংলাদেশের ম্যানেজার নুজহাত জেবিন। তিনি বলেন, চিকিৎসা, নিরাপত্তার বিষয়ে গণসেবা নিতে গিয়ে সাধারণ মানুষ, বিশেষত নারীরা নানা হয়রানি ও ভোগান্তিতে পড়েন। মূলতঃ জনগুরুত্বপূর্ণ খাতে বাজেট বরাদ্দের অভাব, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতার অভাবেই এমন ঘটে থাকে। অন্তর্ভূক্তিমূলক জেন্ডার সংবেদনশীল গণসেবা কাঠামোর বিভিন্ন দাবি তুলে ধরেন তিনি।

ধারণাপত্রে বলা হয়, দেশের জাতীয় বাজেটের স্বাস্থ্যখাতে বরাদ্দ পর্যাপ্ত নয়। এ খাতে মাথাপিছু বাৎসরিক গড় বরাদ্দ ২৭ ডলার যা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কর্তৃক উল্লিখিত দক্ষিণ এশিয়ায় গড় মাথাপিছু বরাদ্দের থেকে ২৫ শতাংশ কম।

অনুষ্ঠানে সঞ্চালক ও অ্যাকশনএইড বাংলাদেশের পরিচালক আজগর আলী সাবরি বলেন, সাধারণ মানুষের জন্য মানসম্মত শিক্ষা ও স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত করা গেলে সে কর্মক্ষম হবে। তাই গণসেবা নিশ্চিত করতে হবে। আলোচনায় গবেষণার ফলাফল ও গণসেবা খাতে সরকারের বরাদ্দ ও বিভিন্ন উদ্যোগের বিশ্লেষণ করেন বাংলাদেশ উন্নয়ন গবেষণা প্রতিষ্ঠানের সাবেক জেষ্ঠ্য গবেষক প্রতিমা পাল মজুমদার।

তিনি বলেন, সেবা নিশ্চিত করতে সরকারের অনেক আইন ও নীতি আছে। তবে সেসব বাস্তবায়ন হয় না বলেই অবস্থা এ পর্যায়ে নেমেছে।

অনুষ্ঠানে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আসা উন্নয়নমূলক সংস্থার প্রতিনিধিরা গণসেবা নিয়ে প্রান্তিক পরিস্থিতি তুলে ধরেন।

কার্যকরী গণসেবা নিশ্চিত করতে গত মাসের ২৩ জুন থেকে দেশব্যাপী 'গণসেবা প্রচারাভিযান' পরিচালনা করছে অ্যাকশনএইড বাংলাদেশ। ঢাকার মতবিনিময় সভার মধ্য দিয়ে ২৪ দিনের এই প্রচারাভিযান শেষ হয়। এ উপলক্ষে সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে গণসেবার দাবিতে গণমিছিল করে অ্যাকশনএইড বাংলাদেশ ও সমবেত সংগঠকরা।

মন্তব্য
সর্বশেষ সংবাদসর্বাধিক পঠিত
সম্পাদক : গোলাম সারওয়ার
প্রকাশক : এ কে আজাদ
ফোন : ৮৮৭০১৭৯-৮৫  ৮৮৭০১৯৫
ফ্যাক্স : ৮৮৭০১৯১  ৮৮৭৭০১৯৬
বিজ্ঞাপন : ৮৮৭০১৯০
১৩৬ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ বেআইনি
powered by :
Copyright © 2017. All rights reserved