শিরোনাম
 ত্রিশালে বাস খাদে পড়ে নিহত ৩  গণভবনের বাইরে গুলিবিদ্ধ এসপিবিএন সদস্য মারা গেছেন  সাতক্ষীরায় দাদার হাতে নাতি খুন
প্রকাশ : ২১ এপ্রিল ২০১৭, ১৯:২৮:০১ | আপডেট : ২২ এপ্রিল ২০১৭, ০১:৩৫:৩২

লাকী আখন্দ আর নেই

সমকাল প্রতিবেদক
'আগে যদি জানতাম', 'এই নীল মনিহার', 'আমায় ডেকো না', 'আবার এলো যে সন্ধ্যা', 'কে বাঁশি বাজায়রে', 'কবিতা পড়ার প্রহর এসেছে', 'যেখানে সীমান্ত তোমার', 'লিখতে পারি না কোনো গান', 'কী করে বললে তুমি' এমন অসংখ্য কালজয়ী গানের স্রষ্টা লাকী আখন্দ আর নেই।

শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি (ইন্নালিল্লাহি ... রাজিউন)। তার মেয়ে মাম্মিন্তি সমকালকে জানান, শুক্রবার দুপুরে তার বাবার শারীরিক অবস্থা অবনতি হওয়ায় দ্রুত তাকে নিয়ে যাওয়া হয় মিটফোর্ড হাসপাতালে। সেখানে সন্ধ্যা ৬টা নাগাদ কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তার বয়স হয়েছিল ৬১ বছর।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) টানা আড়াই মাস চিকিৎসার পর গত সপ্তাহে আরমানিটোলার নিজ বাসায় ফিরেছিলেন কিংবদন্তি এই শিল্পী। তিনি বাসায় থাকাকালীন 'শিল্পীর পাশে ফাউন্ডেশন' সংগঠনের স্বেচ্ছাসেবী এরশাদুল হক টিংকু দেখভাল করছিলেন। তিনি জানান, লাকী আখন্দ হাসপাতাল থেকে ফিরে ক'দিন বেশ ভালোই ছিলেন। তবে শুক্রবার দুপুর নাগাদ তার শারীরিক অবস্থা ক্রমেই খারাপ হওয়ায় তাকে আবারও হাসপাতালে নেওয়া হয়। সব বাঁধন ছিন্ন করে আমাদের কাঁদিয়ে তিনি না ফেরার দেশে চলে যান।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা লাকী আখন্দের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। তিনি এক শোক বার্তায় প্রধানমন্ত্রী সঙ্গীতাঙ্গন ও মুক্তিযুদ্ধে লাকী আখন্দের অবদানের কথা স্মরণ করেন।

শেখ হাসিনা মরহুমের আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর লাকী আখন্দের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।

রাতে লাকী আখন্দের মরদেহ রাখা হবে শাহবাগের বারডেম হাসপাতালের হিমঘরে। শনিবার সকাল ১০টায় পুরান ঢাকার আরমানিটোলা জামে মসিজদে লাকী আখন্দের প্রথম জানাজা অনুুষ্ঠিত হবে। সাড়ে ১১টায় সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের ব্যবস্থাপনায় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নাগিরক শ্রদ্ধাঞ্জলি দেওয়া হবে। সেখানে এ বীর মুক্তিযোদ্ধাকে গার্ড অব অনার দেওয়া হবে। বাদ জোহর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে শেষ জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। তারপর তাকে শহীদ বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় সমাহিত করা হবে।

সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব নাসির উদ্দিন ইউসুফ বাচ্চু, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের  সভাপতি গোলাম কুদ্দুছ, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আনিসুল হক, ইমপ্রেস টেলিফিল্ম লিমিটেড ও চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর লাকী আখন্দের পরিবারের সঙ্গে কথা বলে এ সিদ্ধান্ত নেন।

পরিবারের পক্ষে গীতিকার আসিফ ইকবাল সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

দীর্ঘদিন ধরে ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করেছেন লাকী আখন্দ। ২০১৫ সালের শেষ দিকে চিকিৎসার জন্য ব্যাংককে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে। সেখানে কেমোথেরাপি নেওয়ার পর শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়। ছয় মাসের চিকিৎসা শেষে ২০১৬ সালের ২৫ মার্চ ব্যাংকক থেকে দেশে ফেরেন তিনি। একই বছরের জুনে আবারও কেমোথেরাপির জন্য ব্যাংকক যাওয়ার কথা ছিল। আর্থিক সংকটে পড়ে আর সেখানে যাওয়া হয়ে ওঠেনি। দেশের শীর্ষ শিল্পীদের উদ্যোগে সহযোগিতা করতে চাইলেও বিনয়ের সঙ্গে লাকী আখন্দ তা ফিরিয়ে দিয়েছিলেন। তবে ব্যাংককে চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় তার চিকিৎসার জন্য পাঁচ লাখ টাকা সহায়তা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

লাকী আখন্দের জন্ম ১৯৫৬ সালের ১৮ জুন। শৈশব পেরোতেই তিনি সুযোগ পেয়ে যান প্রতিষ্ঠান এইচএমভিতে। তারপর আর পিছু ফিরে তাকাতে হয়নি। ছন্দ-লয়ের টানে তিনি ভেসে চললেন সুরদরিয়ায়। ১৯৮৪ সালে সারগামের ব্যানারে লাকী আখন্দের প্রথম একক অ্যালবাম প্রকাশ পায়। তিনি ব্যান্ড দল 'হ্যাপি টাচ'-এর সদস্য ছিলেন।

মন্তব্য
সর্বশেষ সংবাদসর্বাধিক পঠিত
সম্পাদক : গোলাম সারওয়ার
প্রকাশক : এ কে আজাদ
ফোন : ৮৮৭০১৭৯-৮৫  ৮৮৭০১৯৫
ফ্যাক্স : ৮৮৭০১৯১  ৮৮৭৭০১৯৬
বিজ্ঞাপন : ৮৮৭০১৯০
১৩৬ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ বেআইনি
powered by :
Copyright © 2017. All rights reserved