শিরোনাম
 ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে হাইড্রোলিক হর্ন বন্ধের নির্দেশ  এমপি রানাকে বিচারিক আদালতে হাজির করার নির্দেশ  অন্তিম শয়ানে নায়করাজ
প্রকাশ : ২০ এপ্রিল ২০১৭, ২১:২৭:৫৩ | আপডেট : ২০ এপ্রিল ২০১৭, ২৩:০৮:০১

সুন্দলপুর ২ নম্বর কূপে গ্যাস উত্তোলন শুরু

সমকাল প্রতিবেদক
নোয়াখালীর সুন্দলপুর গ্যাসক্ষেত্রের ২ নম্বর কূপ থেকে পরীক্ষামূলক গ্যাস উত্তোলন শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার কূপটি থেকে গ্যাস উত্তোলন শুরু হয় বলে বাপেক্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) নওশাদ ইসলাম নিশ্চিত করেছেন। তিনি আশা প্রকাশ করেন, এ কূপ থেকে দৈনিক এক কোটি ঘনফুটের মতো গ্যাস পাওয়া যেতে পারে। তবে সে বিষয়ে নিশ্চিত হতে আরও কয়েক দিন সময় লাগবে বলে জানান বাপেক্স এমডি। এরপর বাণিজ্যিকভিত্তিতে গ্যাস সরবরাহ শুরু হবে।

এই কূপ খননে ব্যয় হয়েছে প্রায় ৬৩ কোটি টাকা। চলতি মাসের ১২ জানুয়ারি খনন কাজ শুরু হয়।

জ্বালানি বিভাগ ও বাপেক্স সূত্রগুলো জানিয়েছে, এই কূপ থেকে খুব বেশিদিন গ্যাস উত্তোলন করা যাবে না। কারণ যে স্তর থেকে ২ নম্বর কূপে গ্যাস পাওয়া গেছে, একই কাঠামো থেকে এক নম্বর কূপের মাধ্যমে গ্যাস উত্তোলন করা হচ্ছে। ২০১২ সালে ১ নম্বর কূপটি থেকে দৈনিক এক কোটি ঘনফুট গ্যাস তোলা শুরু হয়; কিন্তু ক্রমান্বয়ে গ্যাস উত্তোলন কমতে থাকে। ২০১৫ সালের দিকে গ্যাসের সরবরাহ ২০ লাখ ঘনফুটে নেমে আসে। ফলে ১ নম্বর কূপ থেকে গ্যাস উত্তোলন বন্ধ করে দেওয়া হয়। দুই নম্বর কূপটিও এ ধরনের হবে বলে সংশ্লিষ্টদের মন্তব্য। এ ছাড়া ত্রিমাত্রিক জরিপের ফল অনুসারেও সুন্দলপুর খুব বড় গাসক্ষেত্র নয়। এখান থেকে উত্তোলনযোগ্য গ্যাস মাত্র ৮৫ বিলিয়ন ঘনফুট। ২ নম্বর কূপের গ্যাস আসছে এক হাজার ৩৯৫ থেকে এক হাজার ৩৯৯ মিটার গভীরতার চার মিটার পুরু একটি স্তর থেকে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বাপেক্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক বলেন, এই কূপ থেকে কী পরিমাণ গ্যাস কত দিন পর্যন্ত তোলা যাবে, সে বিষয়ে নিশ্চিত হতে আরও কয়েক দিন সময় লাগবে। কয়েকটি পরীক্ষা সম্পন্ন হলে এসব

বিষয়ে জানা যাবে।

১৫ নম্বর ব্লকের এই গ্যাসক্ষেত্রটি বাপেক্সের আওতাধীন। ২০১১ সালে বাপেক্স এই গ্যাসক্ষেত্রটি আবিষ্কার করে। এখান থেকে গ্যাস চট্টগ্রামে দেওয়া হয়।

মন্তব্য
সর্বশেষ সংবাদসর্বাধিক পঠিত
সম্পাদক : গোলাম সারওয়ার
প্রকাশক : এ কে আজাদ
ফোন : ৮৮৭০১৭৯-৮৫  ৮৮৭০১৯৫
ফ্যাক্স : ৮৮৭০১৯১  ৮৮৭৭০১৯৬
বিজ্ঞাপন : ৮৮৭০১৯০
১৩৬ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ বেআইনি
powered by :
Copyright © 2017. All rights reserved